প্রাথমিকে পরের ক্লাসে একই রোল থাকবে

প্রাথমিকে পরের ক্লাসে একই রোল থাকবে

বাংলাভাষী ডেস্কঃ
করোনা মহামারির কারণে প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা বাতিল হওয়ায় অটো পাসের পর ক্লাসে একই রোল থাকবে শিশুদের। শিক্ষার্থীদের মূল্যায়নে প্রধান্য পাবে ভাইরাস আসার আগে আড়াই মাসের ক্লাস ও ছুটিকালীন টেলিভিশন ও অনলাইনে দূরশিক্ষণ কার্যক্রম।

শিক্ষকরা নিজেদের মতো করে এই মূল্যায়নের সুযোগ পাবেন বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আলমগীর মুহম্মদ মনসুরুল আলম।

তিনি বলেন, ‘পরীক্ষা ছাড়া সব শিক্ষার্থীই ওপরের শ্রেণিতে উঠবে। আর ওপরের শ্রেণিতে ওঠার পর তাদের রোল নম্বর আগের ক্লাসের রোল নম্বরই থাকবে।’ তিনি জানান, কোনো শিক্ষার্থীর অভিভাবক চাইলে তার সন্তানকে আগের ক্লাসে রাখতে পারবেন।

করোনা মহামারিতে এইচএসসি পরীক্ষা বাতিলের পর স্কুলের বার্ষিক পরীক্ষাও বাতিল হয়েছে। শিক্ষার্থীদের শিক্ষক দুর্বলতা যাচাইয়ে ৩০ কার্যদিবসের একটি অ্যাসাইনমেন্ট নেয়া হচ্ছে।

তবে প্রাথমিক স্তরের শিক্ষার্থীরা কিসের ভিত্তিতে ওপরের শ্রেণিতে উঠবে, সে বিষয়টি পরিষ্কার ছিল না। এ রকম পরিস্থিতিতে একেক বিদ্যালয় একেক রকম চিন্তা করে আসছিল, কিন্তু কোনোটাই কার্যকর করতে পারছিল না। এখন প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর সিদ্ধান্ত জানাল।

করোনার কারণে মার্চ থেকে বন্ধ থাকা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান চলতি শিক্ষাবর্ষে আর খুলছে না। সবশেষ ঘোষণা অনুযায়ী আগামী ১৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকবে। পরে কী হবে, সে সিদ্ধান্ত এখনো জানায়নি সরকার।

শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি জানিয়েছেন, এবার স্কুলে বার্ষিক পরীক্ষা নেয়া হবে না। ফলে চলতি বছর আর স্কুল-কলেজ খোলার সম্ভাবনা নেই।